ঢাকাবৃহস্পতিবার , ১৭ ফেব্রুয়ারি ২০২২
  1. অর্থনীতি
  2. আন্তর্জাতিক
  3. কৃষি-কৃষক
  4. খেলার খবর
  5. চাকরী
  6. চিকিৎসা-করোনা
  7. জাতীয়
  8. দেশ-জুড়ে
  9. ধর্ম-কর্ম
  10. প্রযুক্তি খবর
  11. বিনোদন
  12. বিস্ময়কর
  13. রাজনীতি
  14. লাইফস্টাইল
  15. শিক্ষা

পাইকগাছায় খাল থেকে বৃদ্ধার বস্তাবন্দি অর্ধগলিত লাশ উদ্ধার

মোঃ মনিরুল ইসলাম, পাইকগাছা (খুলনা) প্রতিনিধি
ফেব্রুয়ারি ১৭, ২০২২ ১২:৫৭ অপরাহ্ণ
Link Copied!


পাইকগাছার কপিলমুনির খাল থেকে করিমন্নেছা বেগম নামে সত্তরোর্ধ এক মহিলার বস্তাবন্দি অর্ধগলিত লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। নিহত করিমন্নেছা উপজেলার কপিলমুনি ইউনিয়নের বারুইডাঙ্গা গ্রামের মৃত জরিপ গাজীর স্ত্রী। গত বৃহস্পতিবার সকালে স্থানীয়রা মাইটখালী খালে বস্তাবন্দি অবস্থায় তার লাশ ভাসতে দেখে পুলিশে খবর দেয়। এরপর বেলা সাড়ে ১১ টার দিকে থানা পুলিশ তার লাশ উদ্ধার করে সুরোতহাল রিপোর্ট শেষে ময়না তদন্তের জন্য মর্গে প্রেরণ করেছে। এব্যাপারে থানায় ইউডি মামলা নং-৪, তাং-১৭/০২/২২। পারিবারিক সূত্র বলছে, গত ৭ ফেব্রæয়ারী সোমবার থেকে করিমন্নেছা নিখোঁজ ছিলেন। ধারণা করা হচ্ছে, কেউ তাকে হত্যার পর লাশ বস্তাবন্দি করে ঐখালে ফেলে যেতে পারে। তবে কি কারণে কারা তাকে হত্যা করেছে তাৎক্ষণিক তা জানা যায়নি।যদিও পুলিশ বলছে, করিমন্নেছা পাগলী প্রকৃতির ছিল শীতের মধ্যে বস্তা জড়িয়েই ঘুরে বেড়াতো। ঠিক এমন অবস্থায় খালে পড়ে গিয়ে থাকতে পারে। থানা পুলিশ ও স্থানীয়রা জানায়, বৃহস্পতিবার সকাল আনুমানিক সাড়ে ৮ টার দিকে কাজীমুছা গ্রামের জনৈক আবু বক্কার শেখ খালে মাছ ধরতে এসে কাজীমুছা-নাবার মাইটখালী খালের জনৈক নুরুজ্জামান আউলিয়ার চিংড়ি ঘের সংলগ্ন এলাকায় বস্তাবন্দি ভাসমান লাশ দেখে স্থানীয় জনপ্রতিনিধিদের সংবাদ দিলে তারা থানা পুলিশ ও কপিলমুনি ইউপি চেয়ারম্যান কওছার আলী জোয়াদ্দারকে জানান। পরে খবর পেয়ে থানা অফিসার ইনচার্জ জিয়াউর রহমান সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে বেলা সাড়ে ১১ টার দিকে তার লাশ উদ্ধার করে। এর আগে উপস্থিত শত শত মানুষের সামনে বস্তাবন্দি অবস্থায় ভাসমান লাশ দেখে বারুইডাঙ্গা গ্রামের মৃত জরিপ গাজীর ছেলে হাশেম আলী গাজী (৫২) লাশটি তার মায়ের বলে শনাক্ত করেন। তবে থানা পুলিশসহ উপস্থিতরা লাশ বস্তামুক্ত করার আগেই তা শণাক্তকরনের বিষয়টিকে সন্দেহের চোখে দেখছেন। যদিও হাশেম লাশের শরীরে পেঁচানো শাড়ীর অংশবিশেষ দেখে লাশটি শানাক্ত করেন বলে দাবি করেন। এ ব্যাপারে পাইকগাছা থানা অফিসার ইনচার্জ জিয়াউর রহমান জানান, করিমন্নেছা মস্তিষ্ক বিকৃত ছিল। শীতের মধ্যে সে বস্তা গায় দিয়েই ঘুরে বেড়াতো। ধারণা করা হচ্ছে, শীতের মধ্যে যে কোনদিন রাতে বস্তাসহ খালে পড়ে গিয়ে থাকতে পারে। এছাড়া তার ছেলেসহ পরিবারের সকলকে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদ করা হলেও তারা কোন তথ্য দিতে পারেনি বলেও দাবি করেন তিনি।

এই সাইটে নিজম্ব নিউজ তৈরির পাশাপাশি বিভিন্ন নিউজ সাইট থেকে খবর সংগ্রহ করে সংশ্লিষ্ট সূত্রসহ প্রকাশ করে থাকি। তাই কোন খবর নিয়ে আপত্তি বা অভিযোগ থাকলে সংশ্লিষ্ট নিউজ সাইটের কর্তৃপক্ষের সাথে যোগাযোগ করার অনুরোধ রইলো।বিনা অনুমতিতে এই সাইটের সংবাদ, আলোকচিত্র অডিও ও ভিডিও ব্যবহার করা বেআইনি।