আজ-সোমবার | ২০শে সেপ্টেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ | ৫ই আশ্বিন, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ | শরৎকাল | ১৩ই সফর, ১৪৪৩ হিজরি | রাত ৮:১৯

  • হোম
  • দেশজুড়ে
Headline
এসএমই ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে ৪% সুদে প্রণোদনা ঋণ দেবে লংকাবাংলা ফাইন্যান্সশার্শায় অর্থাভাবে চিকিৎসা করাতে পারছেন না মুক্তিযোদ্ধা রুহুল আমীনদেশে ফিরল বিভিন্ন মেয়াদে জেল খেটে পাচার হওয়া ৩৬ জন বাংলাদেশীমধুখালীতে ৫টি শিশু শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধহিলি সীমান্তে ভারতে অবৈধ অনুপ্রবেশের অভিযোগে ৪ জন আটকফরিদপুরে মুজিব বর্ষ পৌর গোল্ডকাপ ফুটবল টুর্নামেন্ট ২০২১,১০ নং ওয়ার্ডের জয়লাভ।ক্রেতাদের দুর্দান্ত অভিজ্ঞতা দিতে পুনরায় দারাজের ডি-মার্ট সেবা চালুকৃষি সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাদের পরামর্শ গ্রহণ করে আউশ জমিতে বালাইনাশক প্রয়োগ’র পরামর্শ: শায়লা শারমিনক্রেতাদের স্বাচ্ছন্দ্যে গ্যালাক্সি জেড ফোল্ড৩ ফাইভজি ও জেড ফ্লিপ৩ ফাইভজি’র হ্যান্ডস-অন এক্সপেরিয়েন্স সুবিধা নিয়ে এলো স্যামসাংমুজিবনগর পুলিশের ঝটিকা অভিযান ডজন খানেক ওয়ারেন্টভুক্ত আসামী গ্রেপ্তারসোনাইমুড়ি অম্বরনগর ইউপি চেয়ারম্যানের নেতৃত্বেবহিরাগত সন্ত্রাসী দিয়ে এলাকায় তান্ডবঘোড়াঘাটে ইউপি চেয়ারম্যানসহ ৬ জন জুয়ারু আটককরোনা মহামারি দুর্যোগ মোকাবেলা এক যুদ্ধার নাম আহসান হাবিবস্ত্রীকে ছুরিকাঘাতের পর রক্তমাখা অবস্থায় থানায় গেলেন স্বামীবাংলাদেশের শ্রেষ্ঠ প্রতিষ্ঠানে ভূষিত কুড়ুুুলগাছি আদর্শ কৃষক সমবায় সমিতি
হোম দেশজুড়ে খুলনা ৩৫ বছর পর ফিরে এলেন পাকিস্তানে পাচার হওয়া জাহেদা

৩৫ বছর পর ফিরে এলেন পাকিস্তানে পাচার হওয়া জাহেদা

প্রকাশ: -

মো:মিশন আলী,ঝিনাইদহ প্রতিনিধিঃ ১৯৮৫ সালে জাহেদা খাতুনকে পাবনার ঈশ্বরদীতে বিয়ে দেওয়া হয়। বিয়ের কয়েক বছর পর তাকে নেশা জাতীয় ওষুধ খাইয়ে পাকিস্তানে বিক্রি করে দেয় শ্বশুরবাড়ির লোকজন। জাহেদার পরিবারকে বলা হয় তিনি বাড়ির উদ্দেশ্যে চলে গেছেন। অনেক খোঁজাখুঁজির পর তাকে না পেয়ে পরিবার ভেবেছিল তিনি মারা গেছেন। কিন্তু মায়ের মন বলছিল মেয়ে একদিন ফিরে আসবে। দীর্ঘ অপেক্ষার পর সেই জাহেদা প্রায় ৩৫ বছর পর পাকিস্তান থেকে ফিরে এসেছেন।

জাহেদা খাতুনের বর্তমান বয়স প্রায় ৫৫ বছর। বাড়ি ঝিনাইদহের ভুটিয়ারগাতী গ্রামে। ওই গ্রামের মৃত জব্বার আলী শেখের বড় মেয়ে তিনি। গত ২৮ শে আগস্ট রাতে তিনি বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের একটি ফ্লাইটে পাকিস্তান থেকে দেশে আসেন। পরদিন ২৯ আগস্ট বিকেলে তিনি ঝিনাইদহের নিজ বাড়িতে ফেরেন। জাহেদা মাত্র তিন মাসের ভিসায় পরিবারের কাছে ফিরেছেন। সময় শেষ হলেই তাকে পাকিস্তানে ফিরতে হবে।
জাহেদার পরিবারের লোকজন জানান, ৪০ বছর আগে পাবনা জেলার ঈশ্বরদীর রহিমের সঙ্গে জাহেদার বিয়ে হয়। পরিবার জানতো না তার ঘরে সতীন আছে। শ্বশুর-শাশুড়ি ও ননদ ষড়যন্ত্র করে জাহেদাকে নেশা জাতীয় কিছু খাইয়ে অজ্ঞান করে বিক্রি করে দেন। পরে যখন তার জ্ঞান ফেরে তিনি তখন দেখেন সম্পূর্ণ ভিন্ন এক জায়গায় রয়েছেন। পরবর্তীতে তিনি বুঝতে পারেন এটা বাংলাদেশ নয়, পাকিস্তানের করাচি। সেখানে তাকে দুই বার বিক্রি করা হয়।

একপর্যায়ে সেখানকার এক আলেম তাকে কিনে মুক্ত করে দেন। তখন বাংলাদেশে ফিরে আসার কোনো ব্যবস্থা করতে না পেরে তিনি জাহেদাকে এক পাকিস্তানি যুবক গুল্লা খানের সঙ্গে বিয়ে দেন। জাহেদার জীবনে একটু স্বস্তি ফিরে আসে। সেখানে তার ইয়াসমিন (২২) নামে তার এক মেয়ে রয়েছে।

জাহেদার অন্তরে নিজ দেশ, মা, বাবা, ভাই ও বোনের প্রতিচ্ছবি ভাসছিল। পাকিস্থানের ওয়ালিউল্লাহ মারুফ নামে এক ছেলের সঙ্গে তার পরিচয় হয়। তিনি ২০১৮ সাল থেকে জাহেদাকে নিয়ে নিয়মিত ফেসবুকে পোস্ট দিতে থাকেন। সেই পোস্ট চোখে পড়ে নেত্রকোনার ছেলে মনজুর আহমেদের। এরপর তাদের যোগাযোগ হতে হতে পরিবারের সঙ্গে কথা হয় জাহেদার। জাহেদা বাড়ি ফিরতে চান। কিন্তু টাকা ও পাসপোর্টের অভাবে তিনি ফিরতে পারেন না। পরে ওয়ালিউল্লাহ মারুফই সব ব্যবস্থা করে তাকে দেশে পাঠান।

মুনজুর আহম্মদ  জানান, তিনি ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ে আল-কোরআন অ্যান্ড  ইসলামিক স্টাডিজ বিভাগে পড়াশোনা করেন। তার বাসা নেত্রকোনা জেলায়। তিনি ২০১৮ সালের নভেম্বর মাসে ফেসবুকে একটি পোস্ট দেখতে পান। সেখানে উর্দু থেকে বাংলায় অনুবাদ করে প্রচার করার সহযোগিতা চেয়ে আবেদন করা হয়। এরপর তিনি দেখতে পান ঝিনাইদহ জেলার জাহেদা খাতুন পাকিস্তান থেকে দেশে আসার জন্য খুবই কান্নাকাটি করছেন। তিনি ঝিনাইদহের বিভিন্ন জায়গায় তার পরিবারের সঙ্গে যোগাযোগ করার চেষ্টা করেন। কিন্তু প্রথমে ব্যর্থ হলেও কিছুদিন পর পরিবারের সঙ্গে যোগাযোগ করতে সক্ষম হন।

 

তিনি বলেন, জাহেদার পরিবার তাকে দেশে ফিরিয়ে আনবে এমন সামর্থ ছিল না। এরপর তারা আমার সঙ্গে যোগাযোগ করে সব বিষয় খুলে বলে। তখন পাকিস্তানের ওলিউল্লাহ মারুফের সঙ্গে কথা বললে তিনি পাকিস্থান থেকে তাদের বন্ধুদের সহযোগিতায় জাহেদার পাসপোর্ট ও ভিসার ব্যবস্থা করেন। এরপর জাহেদা দেশে ফিরেছেন। তার দেশে ফিরে আসার পেছনে অনেকে সহযোগিতা করেছেন।

জাহেদার মা রজিয়া  জানান, সন্তানের জন্য যে মায়ের কত পোড়ে তা একমাত্র আল্লাহই জানেন। তিনি সব সময় আল্লাহর নিকট দোয়া করতেন তার মেয়ে যেন তার কাছে ফিরে আসে। আল্লাহ তার ডাক শুনেছেন বলেই তার মেয়ে ফিরে এসেছেন।

জাহেদার ভাই রবিউল ইসলাম জানান, তার বোন জাহেদা যখন নিখোঁজ হয় তখন তিনি দ্বিতীয় শ্রেণিতে পড়তেন। বোনের বিয়ে হয়েছিল পাবনায়। দীর্ঘদিন স্বামীর বাড়ি থেকে বোন ফিরে না আসায় তার খোঁজে পরিবারের লোকজন পাবনায় যায়। কিন্তু সেখান থেকে জানানো হয় জাহেদা অনেক দিন হলো বাবার বাড়ি ঝিনাইদহ যাবে বলে রওনা দিয়েছেন। অনেক খোঁজাখুঁজির পর তাকে না পেয়ে হাল ছেড়ে দেন তারা।
তিনি বলেন, দীর্ঘ ৩০ বছর পর ইন্টারনেটে জাহেদার ছবি দেখে মনজুর নামে এক ছেলে আমাদেরকে খোঁজ করে। তাদের সহযোগিতায় আমাদের বোন বাড়িতে ফিরে আসেন।

জাহেদা খাতুন বলেন, পাবনার শ্বশুরবাড়ির লোকজন আমাকে পাকিস্তানে বিক্রি করে দেয়। পরে সেখানে এক আলেমের সঙ্গে আমার পরিচয় হয়। এরপর ওই আলেম আমাকে পাকিস্তনি যুবক গুল্লা খানের সঙ্গে বিয়ে দেন। সেখানে আমার একটা মেয়েও হয়। কিন্তু দেশে আসার কোনো উপায় জানা ছিল না আমার। এরপর ওয়ালিউল্লাহ মারুফের সঙ্গে যোগযোগ করি, সে আমাকে ফেসবুকের মাধ্যমে বাংলাদেশের নেত্রকোনা জেলার মনজুর আহমেদের সঙ্গে যোগাযোগ করে আমার পরিবারের সঙ্গে যোগাযোগ করে। এরপর আমাকে তিন মাসের একটি ভিসা দিয়ে বাংলাদেশে পাঠায়। এখন আমি আমার পরিবারকে কাছে পেয়ে খুবই আনন্দিত।

এই বিভাগের আরো

এই সপ্তাহের জনপ্রিয়

দামুড়হুদায় প্রবাসী শশুরের টাকা আত্মসাত, স্ত্রীকে সুকৌশলে ডিভোর্স দেওয়ার অভিযোগ : আদালতে মামলা, তদন্ত সিআইডির হাতে

চুয়াডাঙ্গার দামুড় হুদাই রকিবুল ইসলাম (২৭) ও তার মা রুপালী খাতুন (৪৫) পুর্ব পরিকল্পনামূলে বাবুল আক্তার নামে সৌদি এক প্রবাসীর কাছ থেকে বিভিন্ন ভাবে...

কুড়ুলগাছিতে জাল টাকা তৈরি চক্রের ৩ সদস্য আটক

নিজস্ব প্রতিনিধিঃ দামুড়হুদা উপজেলার দর্শনা থানার কুড়ুলগাছি গ্রামে অভিযানে জাল টাকা তৈরি চক্রের সদস্য, চাঁদাবাজ চক্রের হোতা, মাদক ব্যবসায়ী, পুলিশ পরিচয়ে ছিনতাইসহ এক ডজন...

কার্পাসডাঙ্গার ফেরদৌস চোরকে গণ ধোলাই শেষে পুলিশে সোপর্দ

নিজস্ব প্রতিনিধিঃ দামুড়হুদা উপজেলার কার্পাসডাঙ্গা ইউনিয়নের বাঘাডাঙ্গার নতুন পাড়ার পেশাদার চোর ফেরদৌসকে নাটুদাহের আটকবর মোড়ে বাইসাইকেল চুরি করার সময় হাতে আটক করার পর গণধোলাই...

দামুড়হুদা ইউএনওর বদলির আদেশঃ কাঁদছেন উপজেলার হাজার হাজার মানুষ

হাবিবুর রহমান হাবিব/ চুয়াডাঙ্গা প্রতিনিধিঃ চুয়াডাঙ্গা জেলার দামুড়হুদা উপজেলা থেকে একটি বটবৃক্ষের প্রস্থান হতে চলেছে। বটবৃক্ষটি আসলে একটি রক্ত মাংশে গড়া মানুষ! আর এই...

দামুড়হুদায় সুবুলপুরের মাদক ব্যবসাী জাহাঙ্গীর আটক

মো: মাহবুবুর রহমান মনিঃ চুয়াডাঙ্গা দামুড়হুদা মডেল থানার পুলিশ মাদক বিরোধী অভিযান চালিয়ে ১২ বোতল ভারতীয় ELCOREX COUGHSYRUP ও ১কেজি ৫০০ গ্রাম গাজাসহ এক...
Social Media Auto Publish Powered By : XYZScripts.com